শ্রমণা সিংহের তিনটি কবিতা  

শ্রমণা সিংহের তিনটি কবিতা   
21 May 2023, 01:00 PM

শ্রমণা সিংহের তিনটি কবিতা

 

আবার যদি হতো দেখা

 

আবার কখনও হতো যদি তোমার আমার দেখা।

আবারও যদি পথ চলতাম তোমার সাথে এক।

সাক্ষী থাকতো ফুল, পাখি গান আর সবুজ বনলতা

হতেই পারে তেমন করে ফিরে আসছো আজ

আড়াল থেকে ডাকছো আমায় ভুলে সকল লাজ।

তোমার ডাকে সারা দিতেই ছুট  লাগালাম জোড়ে

অমনি তুমি সামনে এসে জড়িয়ে নিলে ধরে।

আমায় দেখে বলে উঠলে এতদিনের পরেও ঠিক তেমনি আছো তুমি !!!

বদলায়নি কোথাও কিচ্ছু তোমার সেই পাগলামি।

কিসের অভিমান জমিয়ে রেখে ছিলে মনের গহীনে,

ভুল ভাঙতে এত্ত দেরী করলে কেন জেনে???

দিন চলে গেছে মাস চলে গেছে বছরের পর বছর

তবুও একটু ছোট্ট আশা ছিলো মনের ভিতর।

ধন্য হলাম  পূর্ণ হলাম তোমার পরশ পেয়ে

নতুন করে করবো শুরু শেষ টুকুনি দিয়ে।

সেই কোন কাকভোরে ঘুম ভেঙে বেড়িয়েছি জোড়ে

শুরু হোক আমাদের পথ চলা

চলতে চলতে হোক কত কথা বলা।

ভালো থেকো তুমি / ভালো থাকুন সকলে।

.........

 এ মন ব্যাকুল কেমন

 

তোমায় ভাবি যখন বসে বসে সারাদিন।

আসা যাওয়া কেনই বা ছিলো

বুঝলো না এ মন কোনদিন!!

এসেই কেমন জয় করেছিলে একটি নরম মন,

বুঝেছি কি ছাই? সবই ছিল তোমার অভিনয় তখন।

কি এমন হল তোমার? এত স্বল্প ক্ষনের থাকা!

মন টা আমার ভেঙে দিলে, পেলাম জোর ধাক্কা।

তুমি এমন নিষ্ঠুর হতে পারলে কি করে??

এক নিমেষে গো হারাতে হারালে এমন করে !

প্রতিদিন যখন কথা হত শুধুই প্রশংসা

তাকেই ভুলে গেলে এমন অচানক এমন সহসা

আমায় ভুলে সুখ যদি পাও!

ব্যাথা ভুলে থাকবো না হয়।

ভালো থেকো ভালোবাসা ভালো থেকো মন

জেনে যাও তোমার কারনে এ মন ব্যাকুল কেমন!

.............

মন চঞ্চল আমার দুপুর

 

 

টাপুর টুপুর বৃষ্টি নূপুর

মন চঞ্চল আমার দুপুর

উল্লাসে আছে গাইছে মন

শুনছি শুধুই কুহুর কুজন।

ক ফোঁটা বৃষ্টি ভিজিয়ে দিল

করল আমায় এলোমেলো।

এই বৈশাখে প্রথম ভেজা

ফুল ফলেরা সব টাটকা তাজা।

মুগ্ধ করছে আজকের এই শীতল দিনের উষ্ণতা

হৃদয় হচ্ছে  পরম তৃপ্ত ভরিয়ে দিচ্ছে মনের খিদা।

ইচ্ছে করছে তোমায় ধরে বেঁধে রাখি নিজের সাথে

এমন ভালো অনুভূতি হারাতে চাই না কোনোমতেই।

ভালোবাসি ভালোবাসি, এই সুরে কাছে দূরে জলে স্থলে

বাজায় বাশিঁ।

.......

Mailing List