আগুন লাগলো কর্মাধ্যক্ষের ৩০০ কুইন্টাল গোলা ভর্তি পাটের গুদামে! চাঞ্চল্য হরিশ্চন্দ্রপুরে

আগুন লাগলো কর্মাধ্যক্ষের ৩০০ কুইন্টাল গোলা ভর্তি পাটের গুদামে! চাঞ্চল্য হরিশ্চন্দ্রপুরে
06 Oct 2022, 06:20 PM

আগুন লাগলো কর্মাধ্যক্ষের ৩০০ কুইন্টাল গোলা ভর্তি পাটের গুদামে! চাঞ্চল্য হরিশ্চন্দ্রপুরে

 

নারাযণ সরকার, মালদা

     

সাত সকালে আগুন লাগার ঘটনা ঘটলো পাটের গুদামে। গুদামে প্রায় ৩০০ কুইন্টাল পাট ছিল বলে দাবি। মাথায় হাত পাট ব্যবসায়ীর। ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে পাঁচটা নাগাদ হরিশ্চন্দ্রপুর-১ নম্বর ব্লকের মহেন্দ্রপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের বনসরিয়া মোড়ে এক পাটের গোলায়। ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে পাট ব্যবসায়ী তথা হরিশ্চন্দ্রপুর-১ নম্বর ব্লকের পঞ্চায়েত সমিতির খাদ্য কর্মাধ্যক্ষ কেরামুদ্দিন আহমেদ। জানা গেছে, প্রথম দিকে স্থানীয়রা আগুন নেভানোর কাজে হাত লাগালেও আগুনের লেলিহান শিখা এতটাই তেজ ছিল যে স্থানীয়রা সরে দাঁড়াতে বাধ্য হয়। ফোন করা হয় তুলসীহাটা দমকল অফিসে। দমকলের একটি ইঞ্জিন দুই ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। স্থানীয়দের সহযোগিতায় গোলার বেশ কিছু পাট সরিয়ে আনা সম্ভব হলেও প্রচুর পাট পুড়ে ছাই হয়ে যায়। যার বর্তমান বাজার মূল্য কয়েক লক্ষ টাকা বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা। 

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, এদিন সকালে পাটের গোলা থেকে ধোঁয়া বের হতে দেখতে পায় এক চা দোকানী। তার চিৎকার চেঁচামেচিতে ছুটে আসে স্থানীয়রা। আগুন দ্রুত গোডাউনে ছড়িয়ে পড়ে। দাউ দাউ করে জ্বলতে থাকে পাট।

পাট ব্যবসায়ী কেরামুদ্দিন আহমেদ বলেন, "সকাল ছয়টার সময় খবর পাই পাটের গোডাউনে শর্ট সার্কিট থেকে আগুন লেগেছে। এসে দেখি, স্থানীয় লোকেরা গোডাউন থেকে পাট বের করছে ও দমকল কর্মীরা আগুন নেভানোর চেষ্টা করছেন। গোডাউনে ৭০০ কুইন্টাল পাট ছিল। আগুনে প্রায় ৩০০ কুইন্টাল পাট পুড়ে গেছে। যার বর্তমান বাজার মূল্য ১৮ লক্ষ টাকার বেশি।

হরিশ্চন্দ্রপুর দমকল অফিসার প্রবীর রায় জানান, ফোন পাওয়া মাত্রই ঘটনা স্থলে ছুটে আসেন। প্রায় দুই ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হয়। গোডাউনের উপর দিয়ে বৈদ্যুতিক তার যাওয়ার কারণে শর্ট সার্কিট থেকে আগুন লেগেছে বলে অনুমান।

Mailing List