একটা দেশের আয়তন এক বর্গ কিমিরও কম! ১৩৫ কোটির দেশে বাস করে সত্যি ভাবতে অবাক লাগে কিনা?

একটা দেশের আয়তন এক বর্গ কিমিরও কম! ১৩৫ কোটির দেশে বাস করে সত্যি ভাবতে অবাক লাগে কিনা?
24 Oct 2021, 05:30 PM

একটা দেশের আয়তন এক বর্গ কিমিরও কম! ১৩৫ কোটির দেশে বাস করে সত্যি ভাবতে অবাক লাগে কিনা?

 

কল্পনায় স্বর্গের একটা রূপ রয়েছে প্রত্যেকের মনেই। তাই তো মনের গোপনে কোথাও লুকিয়ে থাকে স্বর্গে পৌঁছনোর বাসনা। কিন্তু সে স্বর্গের অস্তিত্ব কেবলই কল্পনায়। কারণ, যতক্ষণ দেহে আছে প্রাণ ততক্ষণ সেখানে পৌঁছনোর কথা ভাবারও উপায় নেই। অথচ, এ বিশ্বেই এমন বহু স্বর্গীয় দৃশ্য ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে। প্রকৃতির সেই উজাড় করা সৌন্দর্য হয়তো কল্পনার স্বর্গকে হার মানাতে পারে। সেখানকার মানুষের আচার-আচরণ, কৃষি, অর্থনীতি, ভূপ্রকৃতি- সত্যিই অন্য অনুভূতি জাগায়। তারই পাশাপাশি মিলতে পারে অনেক অজানা তথ্য। বিশ্বজুড়ে এমন কত ছোটখাটো দেশ, ভাস্কর্য রয়েছে তার ইয়ত্তা নেই। এমনই একটি ঘটনার কাহিনী লিখছেন-

 

দীপান্বিতা ঘোষ

 

 

আমরা যে দেশে বাস করি তার আয়তন ৩২ লক্ষ ৮৭ হাজার ২৬৩ বর্গকিমি। এবং এই দেশে প্রায় ১৩৫ কোটি মানুষের বাস।

       

কিন্তু এমন কি কোনো রাষ্ট্র হতে পারে যার আয়তন ১ বর্গকিমিরও অনেক কম?

          

হ্যাঁ, আছে। বৈচিত্রময় এ পৃথিবীতে এমন ক্ষুদ্র দেশও আছে যার আয়তন ০.৪৪ বর্গকিমি বা ০.১৭ বর্গমাইল বা ১১০ একর। বিশ্বের সবচেয়ে ছোট এই দেশটি হলো ভ্যাটিকান সিটি। এটি ইতালির রোম শহরের ভেতর অবস্থিত একটি স্বাধীন রাষ্ট্র।

অবস্থান:

উত্তর-পশ্চিম রোমের ভ্যাটিকান পাহাড়ের উপর একটি ত্রিভুজাকৃতি এলাকায়, তিবের নদীর ঠিক পশ্চিমে ভ্যাটিকান শহর অবস্থিত।

দক্ষিণ-পশ্চিমের সেন্ট পিটার চত্বর বাদে বাকি সব দিক প্রাচীর দিয়ে রোম শহর থেকে বিচ্ছিন্ন।

এটি রোমান ক্যাথলিক গির্জার বিশ্ব সদর দফতর হিসেবে কাজ করে।

 

জনসংখ্যা:

২০১৭ সালের জনগণনা অনুসারে জনসংখ্যা আনুমানিক ১ হাজার জন।

প্রতিষ্ঠা:

ইতালীয় সরকার ও পোপ সম্প্রদায়ের মধ্যে বহু বছর ধরে বিতর্কের পর ১৯২৯ সালে এক চুক্তির মাধ্যমে স্বাধীন ভ্যাটিকান সিটি প্রতিষ্ঠিত হয়।

এর বর্তমান প্রধান পোপ ফ্রান্সিস, ২০১৩ সালের ১৩ মার্চ তিনি দায়িত্বভার গ্রহণ করেন।

 

রাজধানী:

ভ্যাটিকান সিটি।

 

ভাষা:

এ দেশের ভাষা মূলত ইতালিয়ান ও ল্যাটিন। তবে কোনও সরকারি ভাষা নেই।

 

শাসন কাজ:

এই দেশটির পরিচালনা ও দেখভাল করেন একজন পোপ। পোপ হলেন রাষ্ট্রের প্রধান। রাষ্ট্রের নির্বাহী কর্মকান্ড, আইন প্রণয়ন ও বিচার ব্যবস্থা সমস্ত কিছুই পোপের অধীনে। ভ্যাটিকান সিটি সারা পৃথিবীর রোমান ক্যাথলিকদের প্রতিনিধিত্ব করে।

         

ভ্যাটিকান সিটির নিজস্ব সংবিধান, ডাকব্যবস্থা, সিলমোহর, পতাকা এবং অন্যান্য রাষ্ট্রীয় প্রতীক রয়েছে।

সবচেয়ে মজার ব্যাপার এখানে কোনো কিছুর উপরেই ট্যাক্স দিতে হয় না।

 

স্থাপত্য:

ভ্যাটিকানের প্রাচীরের ভেতর আছে উদ্যান ও বাহারি দালান। সবচেয়ে বড়ো দালানটি হোলো সেন্ট পিটারের ব্যাসিলিকা, যা রোমান ক্যাথলিকদের প্রধান গির্জা। ভ্যাটিকানসিটিতে রয়েছে একটি মহাকাশ অবজারভেটরি, লাইব্রেরি ভ্যাটিকানা।

সেনাবাহিনী:

ভ্যাটিকানের নিজস্ব সেনাবাহিনীও আছে। যার নাম সুইস গার্ড। এর সদস্য সংখ্যা প্রায় ১০০ জন।

 

বেতার স্টেশন:

ভ্যাটিকান রেডিও নামের সরকারি বেতার স্টেশন সারা বিশ্বে পোপের কণ্ঠ ছড়িয়ে দেয়।

 

নাগরিকত্ব:

এখানে স্থায়ী ভাবে বসবাস করে ও পোপের দেওয়া বিশেষ দায়িত্ব পালন করে এখানকার নাগরিকত্ব পাওয়া যায়।

ads

Mailing List