রেহান কৌশিকের কবিতা

রেহান কৌশিকের কবিতা
04 Oct 2020, 01:54 PM

রেহান কৌশিকের দু’টি কবিতা

 

◾প্রেমিক নয়, তিরন্দাজ

 

সাজিয়ে তুলেছ এত আশ্চর্য তূণীর

হাড়ে-ধমনি-শিরায় মুছে গেছে লাবণ্যের রেশ।

কোথাও সঙ্কোচ নেই প্রকাশ্য-হত্যায়।

দেহ সব চাঁদমারি। রক্ত মাখে সব মাটিদেশ।

 

কথাছিল, উলটো দিকে যাওয়া মানে প্রকৃত বিজয়।

রাখা হবে বীজ আরও মাটির গভীরে।

মানুষ ও বৃক্ষশিশু খুঁজে নেবে আজন্মের ত্রাণ।

ধ্বংসহীন-দিনলিপি লেখা হবে নদীদের তীরে।

 

প্রতিশ্রুতি পুড়ে গেছে। বেজে ওঠে বিউগল, শোকে।

দ্রুতগামী অস্ত্র যত খুঁজে চলে প্রসিদ্ধ-নগরী।

নিভে যায় কারুকার্য রাত্রিদিন পাথরে, পাঁজরে।

জল ও সময়ে ভাসে যুদ্ধশ্লোক--- হত্যার আখরই!

 

ধারাল করেছ এত অসময় আজ

কোথাও প্রেমিক নেই। দিকে-দিকে হিংস্র-তিরন্দাজ!

           ………..

 

ক্রুশকাঠ

 

আজকাল সমস্ত দৃশ্যে ঝুঁকে পড়ে ধূসর গোধূলি।

ক্রমশ ঘোলাটে হয় মানুষের মুখ

         হ্যামলিনের জাদুময় বাঁশি, সমস্ত স্বজন...

 

দরজা খোলেনি কেউ। প্রেমিককে ফিরিয়ে দেওয়াই

চিরকাল সমাজের শুদ্ধ-বিজ্ঞাপন!

 

কী হয় হাতের কাছে আরও এক হাত এসে যদি

রেখে যায় মায়াবী তণ্ডুল?

               যদি চায় হাতের নিবিড়ে

আরও এক হাত এসে ঢেলে দিতে গোপন আতর?

 

ফিরেছি চৌকাঠ থেকে আহত জন্তুর মতো রোজ!

ভুলে গেছি প্রিয় বর্ণমালা

প্রিয় নদী, জলস্রোত, জীবিতের সমস্ত অক্ষর।

 

এবার যাওয়ার কথা। ভুলে যাবো প্রেমিকার মুখ।

ভুলে যাব ব্যক্তিগত না-পাঠানো চিঠি

               ভাড়াটে খুনির মতো এই বর্ষাকাল

               ভুলে যাবো সমস্ত চৌকাঠ।

 

ওই তো ডেকেছে মাঠ, দূরে

সুদূর মাঠের বুকে গাঁথা আছে বৃষ্টিজল

                      আমার নিজস্ব ক্রুশকাঠ…

 

Mailing List