জলমগ্ন পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার বিস্তীর্ণ এলাকা, গড়বেতায় দেওয়াল চাপা পড়ে মৃত্যু একজনের

জলমগ্ন পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার বিস্তীর্ণ এলাকা, গড়বেতায় দেওয়াল চাপা পড়ে মৃত্যু একজনের
30 Jul 2021, 03:28 PM

জলমগ্ন পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার বিস্তীর্ণ এলাকা, গড়বেতায় দেওয়াল চাপা পড়ে মৃত্যু একজনের

আনফোল্ড বাংলা প্রতিবেদন: বুধবার থেকে শুরু হওয়া বৃষ্টির জেরে জলমগ্ন দক্ষিণবঙ্গের একাধিক জেলা। শুধু কলকাতায় নয়,  টানা বৃষ্টির জেরে জল জমে গিয়েছে পশ্চিম মেদিনীপুর,  বাঁকুড়া,  বীরভূম, ,পূর্ব মেদিনীপুর সহ বিভিন্ন জেলার বিস্তীর্ণ এলাকাতে।

আলিপুর আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে,  সুস্পষ্ট নিম্নচাপ গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের পশ্চিম বর্ধমান ও বীরভূমে অবস্থান করছে। ফলে শুক্রবারও ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির  হবে গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গে। প্রবল বৃষ্টি হতে পারে পশ্চিম বর্ধমান ও পুরুলিয়া জেলায়। ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির সর্তকতা জারি হয়েছে পশ্চিম মেদিনীপুর বাঁকুড়া ও বীরভূম জেলাতে।  বিক্ষিপ্তভাবে হালকা মাঝারি বৃষ্টি হবে গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের অন্য জেলাতেও। রবিবার থেকে আবহাওয়ার উন্নতি হবে বলে জানানো হয়েছে।

এদিকে গত দুদিনের টানা বৃষ্টিতে জলমগ্ন হয়ে পড়েছে পশ্চিম মেদিনীপুরের বিস্তীর্ণ অংশ। মেদিনীপুর, খড়্গপুর, কেশপুর, চন্দ্রকোনার বিস্তীর্ণ এলাকা জলমগ্ন হয়েছে। ভেঙে গিয়েছে, ক্ষতিগ্রস্ত অনেক বাড়ি। মাটির বাড়ি ভেঙে গিয়েছে। নিচু এলাকার বাড়িগুলিতে জল ঢুকে গিয়েছে।

এদিকে গড়বেতার বারামুড়া গ্রামে দেওয়াল চাপা পড়ে মারা গিয়েছেন এক মহিলা। মৃতের নাম পুস্পা রুইদাস (৫৫)। জেলার সহকারী সভাধিপতি অজিত মাইতি জানান, মাটির  বাড়ির দেওয়াল ভেঙে চাপা পড়ে এক মহিলা মারা গিয়েছেন। “অনেক জায়গায় চাষের জমিও জলের তলায় চলে গিয়েছে। কোথায় কত ক্ষতি হয়েছে সেটার হিসাব করা হচ্ছে। ওই সব  জলমগ্ন  এলাকাতে ত্রাণ এবং শুকনো খাবার পৌঁছে দেওয়া হচ্ছে” বলে জানান তিনি।

এদিকে, কেশপুরের মুগবসান, গোলাড় সহ বিভিন্ন এলাকাতে জল জমে বন্যা পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। সেখানের বিভিন্ন এলাকাতে জল ঢুকেছে।  অনেক মাটির বাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। চন্দ্রকোনা এলাকার চকবসনছোড়া এবং আকতকোলা এলাকাতে নদীর বাঁধ   ভেঙে জলমগ্ন হয়েছে একাধিক গ্রাম।

জলমগ্ন মেদিনীপুর এবং খড়্গপুরের বড় এলাকাও। শুক্রবার এই সব এলাকা ঘুরে দেখেন খড়্গপুরের বিধায়ক দীনেন রায়। তিনি জানান, এই সব এলাকাতে ত্রাণ পৌঁছে দেওয়ার ব্যবস্থা করা হচ্ছে।

পশ্চিম মেদিনীপুরের মতই জলমগ্ন পূর্ব মেদিনীপুর, বাঁকুড়া, বীরভূম, হুগলি জেলার বিভিন্ন এলাকা। বীরভূম জেলার দুবরাজপুর এলাকাতে শালনদীর জল বেড়ে রাস্তার ওপর দিয়ে বইছে।  বাঁকুড়া জেলার ইন্দাস, কোতুলপুর, হুগলি জেলার আরামবাগ এলাকাও জলমগ্ন। বাঁকুড়া এবং পশ্চিম মেদিনীপুরে বিভিন্ন নদীর জল বাড়তে শুরু করেছে। জল বাড়ছে দামোদর, রূপনারায়ণ নদেও।

ads

Mailing List