দুয়ারে  সরকার নয়, দুয়ারে সিবিআই, তৃণমূল কংগ্রেসকে কটাক্ষ শুভেন্দু অধিকারীর

দুয়ারে  সরকার নয়, দুয়ারে সিবিআই, তৃণমূল কংগ্রেসকে কটাক্ষ শুভেন্দু অধিকারীর
22 Feb 2021, 09:33 PM

 

দুয়ারে  সরকার নয়, দুয়ারে সিবিআই, তৃণমূল কংগ্রেসকে কটাক্ষ শুভেন্দু অধিকারীর

 

আনফোল্ড বাংলা প্রতিবেদনঃ গতকালই ডায়মন্ডহারবারের সাংসদ তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ভাইপো অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের স্ত্রী রুজির  বন্দ্যোপাধ্যায়কে জিজ্ঞাসাবাদ করতে চেয়ে নোটিশ দিয়েছে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা সিবিআই। এই প্রসঙ্গ টেনে , বিজেপি নেতা শুভেন্দু অধিকারী বলেন, এখন আর দুয়ারে সরকার নয়, এখন দুয়ারে সিবিআই। সোমবার, হুগলি জেলার ডানলপের দলীয় সভা থেকে এই ভাবেই তৃণমূল কংগ্রেস এবং অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়কে কটাক্ষ করলেন তিনি। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বক্তব্য রাখার আগেই সভাতে বক্তব্য রাখতে গিয়ে শুভেন্দু অধিকারী জানিয়েছেন যে তিনি এবার লালার ডাইরি নিয়ে মাঠে নামবেন। এই সভা থেকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কেও কটাক্ষ করেন রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়।

তাঁকে যে নোটিশ পাঠানো হয়েছে তা কী কারণে পাঠানো হয়েছে না জানেন না বলেই জানিয়ে রুজিরা সিবিআইকে জানিয়েছেন যে মঙ্গলবার তাঁর বাড়িতে আসতে পারেন তদন্তকারী আধিকারিকরা।

রাজ্য সরকার ডিসেম্বরের প্রথম সপ্তাহে দুয়ারে সরকার কর্মসূচি চালু করেছিল। সেই সময় বিজেপির তরফ থেকে যমের দুয়ারে সরকার বলেও কটাক্ষ করা হয়েছিল। এখন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের বাড়িতে গিয়েছে সিবিআই। এই ব্যাপারে কটাক্ষ করে শুভেন্দু অধিকারী বলেন,  “দুয়ারে এখন সিবিআই”।

 

এই সঙ্গে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়কে আক্রমণ করে শুভেন্দু অধিকারী বলেন, “অনেক বড় বড় কথা বলছিলেন। গতকাল কী হল? লোকে এখন আর দুয়ারে সরকার বলছে না, বলছে দুয়ারে সিবিআই। ভাইপোকে তোলাবাজ বললেই রেগে যায়।  ওকে শ্রীঘরে যেতেই হবে। আমি এবার লালার ডাইরি নিয়ে নামবো। কয়লা পাচারের টাকা, গরু পাচারের টাকা কোথায় যায় বোঝাবো। এতদিন তো বলতো বিজেপি কাপুরুষ। এবার কি হলো?”

দিন কয়েক আগেই তমলুকের সভা থেকে প্রথম একটি কাগজ তুলে ধরে শুভেন্দু অধিকারী  প্রশ্ন করেছিলেন, “ম্যাডাম নারুলা কে?” তারপর রবিবার অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের  স্ত্রী রুজিরাকে সিবিআই নোটিশ পাঠিয়েছে। আর শুভেন্দু অধিকারী হুঁশিয়ারি দিয়ে বললেন, লালার ডায়েরি নিয়ে মাঠে নামবেন। ২০১৫ থেকে অনুপ মাঝি  ওরফে লালা কাকে কত টাকা দিয়েছেন, তার উল্লেখ আছে আছে ওই ডাইরিতে বলেই  দাবি করা হয়েছে।  এই নিয়েই শুভেন্দু অধিকারী বলেছেন যে কয়লা পাচার চক্রে অভিযুক্ত  লালার ডায়েরি নিয়েই এবার মাঠে নামবেন তিনি।

তৃণমূল কংগ্রেসে যে নতুন শ্লোগান দিয়েছে ‘বাংলা ঘরের মেয়েকেই চায়’ সেই প্রসঙ্গ টেনে এনে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে উদ্দেশ্য করে শুভেন্দু বলেন, “ বাংলার মানুষ আপনাকে অনুপ্রবেশকারীদের ফুপু এবং রোহিঙ্গাদের খালা বলেই মনে করে। বাংলার মেয়ে বলে মনে করে না।”

এই  সভা থেকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে আক্রমণ করেছেন তাঁর সহযোদ্ধা রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়ও। রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়  বলেন, “মাননীয়া বলছেন তিনি এখন গোল কিপার, সব গোল তিনি সামলাবেন। আসলে তাঁর দলে এখন আর কোনও প্লেয়ার নেই। তাই তিনি বলছেন তিনিই গোলকিপার। শুনে রাখুন মাননীয়া, আমরাও স্ট্রাইকাররা রয়েছি। আমরা জানি কী করে গোল দিতে হয়।”

Mailing List