পশ্চিমবঙ্গ বারুদের স্তুপের ওপর বসে রয়েছে, পুরুলিয়ায় বিস্ফোরক লকেট

পশ্চিমবঙ্গ বারুদের স্তুপের ওপর বসে রয়েছে, পুরুলিয়ায় বিস্ফোরক লকেট
03 Jan 2021, 07:41 PM

পশ্চিমবঙ্গ বারুদের স্তুপের ওপর বসে রয়েছে, পুরুলিয়ায় বিস্ফোরক লকেট

 

আশিস বন্দ্যোপাধ্যায়, পুরুলিয়া

'মমতা ব্যানার্জী, শিল্পের নাম করে দুটি শিল্প তৈরী করেছেন। চপ শিল্প আর বোমা শিল্প। পাড়ায় পাড়ায় বোমা তৈরির কারখানা তৈরী করেছেন। চারিদিকে শুধু জঙ্গীরা ধরা পড়ছে। পুরো পশ্চিমবঙ্গকে বারুদের স্তুপের উপর বসিয়ে রেখেছে।' পুরুলিয়ায় বিজেপির আয়োজিত পথসভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে এই ভাষাতেই মন্তব্য করেন লকেট চ্যাটার্জী। 

রবিবার একগুচ্ছ কর্মসূচি নিয়ে পুরুলিয়া সফরে যান লকেট চট্টোপাধ্যায়। তার মধ্যে মূল কর্মসূচি ছিল পুরুলিয়ার সরকারি হোম কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে ওঠা যৌন নির্যাতনের অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে প্রতিবাদ জানানো। এদিন পথসভায় বক্তব্যের শুরুতেই আনন্দমঠ জুভেনাইল হোমে নাবালিকাদের উপর হওয়া শারীরিক নির্যাতনের প্রসঙ্গে তিনি বলেন, "সরকারি হোমে সরকারি মদত ছাড়া কী করে নাবালিকাদের আপার শারীরিক নির্যাতন চালায়? সরকার এটাকে ধামাচাপা দেওয়ার চেষ্টা চালাচ্ছে। বছরের পর বছর ধরে ওই সরকারি হোমে এধরনের ঘটনা ঘটছে। তাই যতদিন না পর্যন্ত দোষীরা শাস্তি পাচ্ছে বিজেপি লড়াই চালিয়ে যাবে।" 

দুয়ারে সরকার প্রসঙ্গে তিনি বলেন, " দুয়ারে সরকারে তো চোর ডাকাতরা আসবে।  এতদিন রাস্তায় ছিল। এখন মানুষের ঘরের মধ্যে ঢুকে চাল, ঘটি, বাটি যা ছিল সেগুলোও নিয়ে চলে যাবে। আগামীদিনে দুয়ারে সরকার এলে আচ্ছা করে দেবেন। আমরা একসাথে হয়ে আগামীদিনে লড়ব।"

এদিনের লকেট চ্যাটার্জী আরও বলেন, "বাংলায় যদি কোনও মহিলার গায়ে কোনওরকমে হাত পড়ে তাহলে আমরা সেই হাত কেটে দেব। আগামীদিনে একুশে সরকার আসবে। আর ওইদিকে তৃণমূলের জোড়া ফুলে দুজনই মালিক থাকবে পিসি আর ভাইপো। এখন কয়লা চোর, গরু চোরদের সিবিআই ধরছে। এই সিবিআই কালীঘাট অবধি যাবে এবং এই অভিষেক বন্দোপাধ্যায় ডায়মন্ড হারবারের এমপি তিনি এই কয়লা পাচারের সঙ্গে যুক্ত আছে এটা সবাই জানে।"

এদিনের কর্মসূচীতে উপস্থিত ছিলেন পুরুলিয়া লোকসভা কেন্দ্রের সাংসদ জ্যোতির্ময় সিং মাহাতো, জেলা বিজেপি সভাপতি বিদ্যাসাগর চক্রবর্তী, মহিলা মোর্চা সভানেত্রী কাবেরী চ্যাটার্জী-সহ অন্যান্যরা।

Mailing List