মাত্র ৫০০ টাকা নিয়ে লড়াইয়ের ময়দানে জহরলাল নেহেরু  বিশ্ববিদ্যালয়ের লড়াকু নেত্রী

মাত্র ৫০০ টাকা নিয়ে লড়াইয়ের ময়দানে জহরলাল নেহেরু  বিশ্ববিদ্যালয়ের লড়াকু নেত্রী
25 Apr 2021, 12:08 PM

 মাত্র ৫০০ টাকা নিয়ে লড়াইয়ের ময়দানে জহরলাল নেহেরু  বিশ্ববিদ্যালয়ের লড়াকু নেত্রী

 

 

আনফোল্ড বাংলা প্রতিবেদন:  ঐশী ঘোষ। দিল্লির জহরলাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী। আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিষয়ে স্নাতকোত্তর করার পরে এখন এম  ফিল করার জন্য প্রস্তুত হচ্ছেন তিনি। জহরলাল নেহেরু বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র সংসদের পদে আছেন ঐশী। সেই ঐশী, ছাত্র আন্দোলন করতে গিয়ে  যার মাথায় আঘাত লেগেছিল। তারপরেও আন্দোলন থেকে সরে আসেননি তিনি। দিল্লির জহরলাল নেহেরু বিশ্ববিদ্যালয়ের এই লড়াকু নেত্রীকেই এবার পশ্চিম বর্ধমান জেলার জামুরিয়া কেন্দ্রে প্রার্থী করেছে সিপিএম।  আর এই লড়াইয়ে তিনি নেমেছে হাতে মাত্র ৫০০ টাকা নিয়ে।

এই বার বিধানসভা নির্বাচনে এক ঝাঁক তরুন মুখকে প্রার্থী করেছে সিপিএম। কেউ সদ্য পড়াশোনা শেষ করেছে, কেউ এখনও ছাত্র। সিপিএমের  যে ছাত্র এবং যুব সংগঠন আছে তাদের অনেকেই এবার বিধানসভার লড়াইয়ে।

তাদেরই জন ঐশী ঘোষ। দুর্গাপুরের ওয়ারিয়া এলাকার বাসিন্দা এবং দুর্গাপুর (পশ্চিম) কেন্দ্রের ভোটার, দিল্লির জহরলাল বিশ্ব বিদ্যালয়ের ছাত্রী, তাঁকেই এবার লড়াই করতে হচ্ছে জামুরিয়া কেন্দ্রে। যে এলাকা এক সময়ে ছিল সিপিএমে শক্ত ঘাঁটি। কয়লার দেশে এই এলাকা ছিল লালদুর্গ। এবার সেখানে আবার লাল পতাকা ওড়ানোর কঠিন দায়িত্ব এই লড়াকু নেত্রীর কাঁধেই, যিনি তাঁর মনোনয়ন পত্রে জানিয়েছেন যে  তিনি এখনও ছাত্রী।

জানিয়েছেন যে তাঁর নামে বাড়ি,  গাড়ি,  সোনা কিছুই নেই। আছে বলতে নগদ ৫০০ টাকা এবং ব্যাঙ্কে ১ লক্ষ ৮৩ হাজার ৮১৮ টাকা। আর আছে ৭৮৭৫ টাকার লোন।  ল্যাপটপ কেনার জন্য তাঁর ঋণ ছিল ৩১ হাজার ৫০০ টাকা, অনেকটাই শোধ করে দিয়েছেন, এখনও বাকি আছে ৭৮৭৫ টাকা।

আর তাঁর নামে দিল্লির বসন্ত কুঞ্জ (উত্তর ) থানায় আছে মামলা, ভারতীয় দন্ডবিধির ১৪৫, ১৪৭, ১৪৮, ৩২৩, ৫০৬ সহ আরও কিছু ধারায় মামলা আছে তাঁর নামে। আর এইটুকু নিয়েই এবার নির্বাচনী লড়াইয়ের ময়দানে এই লড়াকু নেত্রী।

 

ads

Mailing List